ভোট প্রচারের ভিডিয়োতে তাদের অপমান করছে বিজেপি, চিকিৎসকদের প্রতিবাদ

নিজস্ব প্রতিবেদন, বেঙ্গল মিরর: বিজেপি ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের অপমান করছে। ভোট প্রচারের ভিডিয়োতে অপমান করছে। তারই প্রতিবাদে সোচ্চার হয়েছে চিকিৎসকদের একটি সংগঠন।

আজ, রবিবার মেডিক্যাল সার্ভিস সেন্টার, পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য কমিটির সম্পাদক ডাক্তার অংশুমান মিত্র আজ এক প্রেস বিবৃতিতে বলেন, সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিজেপি একটি ভিডিয়ো প্রচার করছে। যেখানে অভিনীত চরিত্ররা বলছেন তাদের পুত্র হাসপাতালে বিনা চিকিৎসায় মারা গিয়েছেন। তার কারণ হলো চিকিৎসক থেকে ওয়ার্ড বয় পর্যন্ত সকলেই যে ঘুষের টাকা চেয়েছিলেন সেটা দিতে না পারা। ওই ভিডিয়োতে খুব স্পষ্টভাবে তারা ডাক্তার এবং স্বার্থ স্বাস্থ্যকর্মীদের তোলাবাজ, দুর্নীতি পরায়ন, পিশাচ হিসেবে তুলে ধরছে এবং হাসপাতালের সমস্ত অবস্থার জন্য দায়ী করা হয়েছে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের। এমন চরম অবমাননাকর বিজেপির এই বক্তব্যের আমরা তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

Medical service centre protest on derogative video of BJP

আরও বলা হয়েছে, পূর্বতন যে কোনও রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকার স্বাস্থ্য ব্যবস্থাকে তিল তিল করে ধ্বংসের দিকে নিয়ে গেছে এবং যা সাধারণ মানুষের নাগালের বাইরে। আর এর দায় চাপিয়েছেন চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্য কর্মীদের উপর। বিজেপির ক্ষমতায় আসার জন্য সরাসরি চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের কাঠগড়ায় তুলেছে। বোঝা যাচ্ছে তারা কি করতে চাই এবং তাদের মনের কথা কি রকম। আমরা দেখতে পেয়েছি উত্তরপ্রদেশের গোরক্ষপুর বিআরডি হাসপাতাল মানবদরদি চিকিৎসক ডাক্তার কাফিল খান-এর উপর বর্বর আচরণ, তাকে দাগিয়ে আসামিদের তালিকায় নাম নথিভুক্ত করা ইত্যাদি। কেন্দ্র এবং ক্ষমতাসীন রাজ্যগুলোতে বিজেপি সরকার যেভাবে স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে একটার পর একটা জনস্বার্থবিরোধী নীতি রূপায়ণ করতে চলেছে তাতে স্বাস্থ্য ব্যবস্থার সংকট আরও তীব্রভাবে বাড়ছে। সার্বিক বেসরকারিকরণের উদ্দেশ্যে বিজেপি সরকার তৈরি করেছে ন্যাশনাল হেলথ পলিসি ২০১৭ এবং ন্যাশনাল মেডিক্যাল কমিশন অ্যাক্ট ২০১৯ ইত্যাদি। যেকোনো উপায়ে নির্বাচনী বৈতরণী পার হওয়ার উদ্দেশ্যে এই অবমাননাকর মন্তব্যের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার জন্য আমরা চিকিৎসক সমাজ এবং চিকিৎসাকর্মীদের কাছে আবেদন জানাচ্ছি। 

Post a comment

0 Comments